লাশ উদ্ধার: রাজধানীতে লন্ডন প্রবাসীর লাশ উদ্ধার

রাজধানীতে নিখোঁজের পাঁচ দিন পর জালাল উদ্দিন সরকার (৫৫) নামে এক লন্ডন প্রবাসীর লাশ কাঁশবন থেকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। তুরাগ থানার ষোলহাটি ব্রিজের পাশের কাঁশবন থেকে সোমবার রাত ১২টায় তার লাশ উদ্ধার করা হয়। তিনি বৃহস্পতিবার থেকে নিখোঁজ ছিলেন।

নিহতের বড় ভাই শাজাহান সরকার জানান, লন্ডন প্রবাসী জালাল মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার দক্ষিণ মশুরা গ্রামের মৃত আব্দুর রহমানের ছেলে। ঢাকার দক্ষিণখানের জয়নাল মার্কেট এলাকার (১৬ নম্বর) নিজ বাসায় থাকতেন। তার দুই স্ত্রী। প্রথম স্ত্রীর দুই ছেলে তিন মেয়ে, দ্বিতীয় স্ত্রীর এক ছেলে রয়েছে।

তিনি জানান, তার ভাই দীর্ঘদিন ধরে লন্ডন থাকেন। তিন মাস আগে তিনি দেশে আসেন। ছুটি শেষ হয়ে যাওয়ায় তিনি আবার লন্ডন ফেরার প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন।

তিনি আরও জানান, জালালের একটি প্রাইভেটকার আছে। এর চালক বাবুলের বাড়ি কুমিল্লায়। তিনি গ্রামের বাড়িতে যাওয়ার জন্য বুধবার জালালের কাছ থেকে গাড়িটি চেয়ে নেন। গাড়ি বাসায় না থাকায় বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় তিনি (জালাল) বাসে করে মতিঝিলের উদ্দেশে রওয়ানা হন।

এদিকে তার গাড়ির চালক ঢাকায় এসে তাকে ফোন দেন। তিনি বিকেলে কাজ শেষে কল্যাণপুর থেকে নিজ গাড়িতে আশুলিয়া হয়ে দক্ষিণখানের বাসার ফিরছেন বলে মোবাইলে পরিবারকে জানান। ওইদিন রাত ১১টায় তিনি সর্বশেষ ছোট স্ত্রীর সঙ্গে ফোনে কথা বলেন। এরপর থেকে তার ফোন বন্ধ ছিল।

শাজাহান সরকারের ধারণা- চালক বাবুল তার ভাইকে হত্যা করে গাড়ি ও টাকা-পয়সা নিয়ে পালিয়েছে। এছাড়া এ হত্যাকাণ্ডে আরও কেউ জড়িত থাকতে পারে।

তুরাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহুবে খোদা জানান, স্থানীয়দের কাছে খবর পেয়ে লাশ উদ্ধার করে ময়নাদতন্তের জন্য মঙ্গলবার সকালে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়। নিহতের মাথায় আঘাত ছাড়াও শরীরের বিভিন্ন অংশে জখমের চিহ্ন রয়েছে।

তিনি জানান, এ ব্যাপারে মামলা প্রক্রিয়াধীন। মামলার পর হত্যার রহস্য উদঘাটন এবং জড়িতদের গ্রেফতারে অভিযান শুরু হবে।

বিডিলাইভ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.