প্রবাসী পরিবার আতঙ্কে॥ মধ্য রাতের হামলা ও লুটপাট

লৌহজং উপজেলায় ভরাকর গ্রামে প্রবাসীর পরিবারে সন্ত্রাসী হামলার দুই দিনেও কেউ গ্রেফতার হয়নি। তবে শনিবার পুলিশ মামলা নিয়েছে।

বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত দেড়টার দিকে দরজা ভেঙ্গে আকস্মিক হামলা হয় ঘুমন্ত পরিবারটির উপর। বাসভনটি কুপিয়ে ভাংচুর করে। ভয়ে টতস্ত পরিবারের শিশুসহ সকলকেই নির্মমভাবে আঘাত করে। লুট করে নিয়ে যায় মূল্যবান সামগ্রী। আহত মা আমেনা বেগম (৫০) কনে আইরিন আক্তার (২২) ও আইরিনের দু’কন্যা ছিমি আক্তার (১০) ও সিমরান আক্তারকে (৪) লৌহজং হাসপাতালে ভর্তি ও চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

তবে মাথায় ও চোখে আঘাতপ্রাপ্ত আইরিন আক্তারকে উন্নত চিকিৎসার পরামর্শ দিয়েছেন চিকিৎসক। আমেনা বেগম জানান, জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে সালাম মাতবরের নেতৃত্বে এই হামলা হয়। তিনি বাদী হয়েছে শনিবার লৌহজং থানায় মামলা করেছেন। তার স্বামী আব্দুল এবং পুত্র শেখ সাকিল মালেশিয়া প্রবাসী এবং তার কন্যা আইরিনের স্বাী শেখ সেলিম সৌদি আরব প্রবাসী। পরিবারের পুরুষ সদস্যরা বিদেশে থাকার সুযোগে নানাভাবে পরিবারটিকে যন্ত্রণা দিচ্ছে বলে তিনি অভিযোগ করেন। এব্যাপারে লৌহজং থানার ওসি মোল্লা জাকির হোসেন জানান, পুলিশ আসামীদের গ্রেফতারে চেষ্টা চলাচ্ছে।

জনকন্ঠ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.