বাংলাদেশী চিত্রশিল্পিদের জাপানে সম্মানজনক পুরষ্কার অর্জন

হাসিনা বেগম রেখা : আন্তজাতিক চিত্রকর্ম প্রতিযোগীতা কিয়কু বি তে অংশ নিয়ে গতবারের মতো এবারও বাংলাদেশী মেধাবী চিত্রশিল্পীরা বাংলাদেশের জন্য সম্মান বয়ে এনে দিয়েছেন। বিশ্বদরবারে নিজ দেশকে সম্মানের সংগে পরিচিত দিতে পেরেছে। গত বছর এই প্রতিযোগীতায় অংশ নিয়ে দু’জন শিল্পী পুরষ্কার পেয়েছিল। এবছর চার জন বাংলাদেশী চিত্রশিল্পী পুরস্কার পেলো। এরা হচ্ছেন ইউনিভাসিটি অব ডেভেলপমেন্ট অলটারনেটিভ (ইউডা) এর চারুকলা ভিভাগের চেয়ারম্যান প্রফেসর শাহজাহান আহমেদ বিকাশ, মোঃ ফজলুর রহমান ভুটান, আব্দুস শাকুর শাহ এবং তরুণ চিত্রশিল্পী মোঃ সোলায়মান হোসেন।

শাহজাহান আহমেদ বিকাশ ২০০০ এবং ২০০১ সালে বঙ্গবন্ধু অ্যাওয়ার্ড এবং ২০১৫ সালে চীন এ আয়োজিত অ্যাওয়ার্ড অব গ্লোবাল কালচারাল আর্টিস্ট পুরষ্কার জয়ের গৌরব অর্জন করে।

কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের জাপান আগমনের শতবর্ষ উপলক্ষে শাহজাহান আহমেদ বিকাশের তেলরঙে আঁকা পাঁচ X চার ফুট (রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের প্রতিকৃতি সংকলিত)”ব্লম টাইম অব হ্যানন্ডেড ইয়ার্স ”শিরনামে চিত্রকর্মটি গতবার স্থান পায় এবং বিভিন্ন বিভাগে মধ্যে জাপানের শিস্ট সংস্কৃতি, ক্রিড়া, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের মোনবু-কাগাকু-দাইজিন পুরষ্কার অর্জন করতে সক্ষম হয়।

একই প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে মোঃ ফজলুর রহমান বাংলাদেশের গৌরব রয়েল বেঙ্গল টাইগার সংকলিত “গ্লোবাল টাইগার” শিরোনামের চিত্রকর্ম এঁকে সেমি গ্ল্যান্ড পুরস্কার প্রাপ্তির গৌরব অর্জন কার বাংলাদেশী চিত্রশিল্পীদের ভাবমূর্তি ও অর্জন করেন।

চিত্রশিল্পী ফজলুর রহামান শৈশবে শিশু চিত্রশিল্পী হিসাবে চারবার ঢাকা বিভাগে প্রথম স্থান সহ ১৯৮১ সালে জাতীয় পুরষ্কার লাভ করে। তিনি বাংলাদেশের প্রখ্যাত চিত্রশিল্পী আব্দুল হাই এর কাছে চিত্রকর্ম হাতেখড়ি নেন।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা অনুষদ থেকে ডিগ্রি অর্জনকারী মোঃ ফজলুর রহমান কালের ছবি, মুন্সিগঞ্জ বিক্রমপুর এসোসিয়েশন, মুন্সিগঞ্জ সম্মিলিত সাংস্কতিক জোট সম্মাননা অর্জনসহ বহু আন্তজাতিক চিত্রকর্ম প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে পুরষ্কারে ভূষিত হন। তারমধ্যে ইতালির বোলজানু এবং জাপানের গ্লোরিমা আর্ট ফাউন্ডেশন অন্যতম। বর্তমানে তিনি বাঘ নিয়ে কাজ করছেন। বাংলাদেশ চারুশিল্পি সংসদের একজন সম্মানিত সদস্য মোঃ ফজলুর রহমান।


৩০ সেপেম্বর ২০১৭ টোকিওর মেট্রোপলিটন আর্ট মিউজিয়ামের ভিআইপি লাউঞ্জের জমকালো এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে বাংলাদেশী চিত্রশিল্পিসহ পুরষ্কার প্রাপ্ত অন্য চিত্রশিল্পীদের হাতে সম্মাননা স্বীকৃতি তুলে দেয়া হয়। অনুষ্ঠানে বিভিন্ন দেশের চিত্রশিল্পী এবং সংশ্লিস্ট দেশগুলোর কূটনৈতিক প্রতিনিধিদের পাশাপাশি বাংলাদেশ দূতাবাস প্রতিনিধি হিসাবে ইকনোমিক মিনিস্টার ডঃ সাহিদা আক্তার এবং দ্বিতীয় সচিব মোঃ বেলাল হোসেন উপস্থিত ছিলেন। ডঃ সাহিদা আক্তার অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন। এছাড়াও উপস্থিত অতিথিদের পক্ষ থেকে প্রবাসী মিডিয়াকর্মী সাপ্তাহিক জাপান প্রতিনিধি রাহমান মনি বক্তব্য রাখেন এবং বাংলাদেশে অবস্থানকারী বাংলাদেশী চিত্রশিল্পীদের পক্ষে পুরষ্কার গ্রহন করেন।

হাসিনা বেগম রেখা :
ছবি – রাহমান মনি
নিহন বাংলা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.