পাঠক সংখ্যা

  • 8,846 জন

বিভাগ অনুযায়ী…

পুরনো খবর…

মুন্সীগঞ্জের শিলই ইউনিয়নে সাংবাদিক লাঞ্চিত

নিজস্ব প্রতিনিধি : মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার শিলই ইউনিয়নের পূর্বরাখি গ্রামে সংবাদ সংগ্রহ করতে গেলে দৈনিক আলোকিত সকাল পত্রিকার জেলা প্রতিনিধি সোহেল টিটু সন্ত্রাসী হামলার স্বীকার হয় বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে ।

রবিবার (১২ মে) রাত ১০টার দিকে শিলই ইউপির ৩ নং ওয়াডের্র সদস্য দিল মোহাম্মদ দিলু বেপারির মালিকানাধীন জমি থেকে গাছ কেঁটে চুরি করে নিয়ে যাচ্ছে একদল সন্ত্রাসী বাহিনী, এমন সংবাদ পেয়ে সাংবাদিক সোহেল টিটু ঘটনাস্থলে সংবাদ সংগ্রহ করতে গেলে সাংবাদিক সোহেল টিটুর উপর সন্ত্রাসী হামলা হয়।

অভিযুক্ত ইসমাইল বেপারি

সাংবাদিক সোহেল টিটু জানান, শিলই ইউপির ৩নং ওয়ার্ডের সদস্য দিল মোহাম্মদ দিলু বেপারী ৩০ শতাংশ জমি ক্রয় করেন, জমির মালিক নুরনবী চৌকিদার থেকে। বর্তমানে বায়না সূত্রে ওই জমির মালিক দিল মোহাম্মদ দিলু বেপারি। ওই ইউনিয়নের পূর্বরাখি গ্রামের কুখ্যাত সন্ত্রাসী ও ভূমিদস্যু সাবেক মেম্বার ইসমাইল বেপারি রাতের আঁধারে তার দলবল নিয়ে ওই জমি থেকে কয়েকটি আকাশী গাছ কেঁটে চুরি করে নিয়ে যাচ্ছছিলেন। সেসময় আমি ক্যামেরা নিয়ে ছবি তুলতে গেলে আমার উপর হামলা করেন সাবেক মেম্বার ইসমাইল বেপারি ও তার সন্ত্রাসী বাহিনী ।

এব্যাপারে বায়না সূত্রে জমির মালিক দিল মোহাম্মদ দিলু বেপারী জানান, তারাবী নামাজ আদায় শেষে আশেপাশের লোকজনের থেকে জানতে পারি আমার ক্রয়কৃত জমি থেকে ইসমাইল বেপারী গাছ চুরি করে নিয়ে যাচ্ছে। এসময় ঘটনাস্থলে যাওয়ার পথে আমার বড় ছেলে সাংবাদিক সোহেল টিটু’র সাথে দেখা হয় আমি তাকে নিয়ে ঘটনাস্থলে যাই। সাংবাদিক সোহেল টিটু কর্তনকৃত গাছের ছবি তোলতে গেলে ইসমাইল বেপারী ও তার লোকজন তার উপর হামলা করেন।

স্থানীয়দের থেকে জানাযায় , ইসমাইল মেম্বার শিলই ইউপি চেয়ারম্যান আবুল হাসেম লিটন এর ছোট ভাই। শিলই ইউনিয়ের জনগন তাকে ভূমিদস্যু নামেই চিনে। শিলই ইউনিয়নবাসীর কাছে একটাই আতঙ্ক ইসমাইল মেম্বার। মুন্সীগঞ্জ সদর থানায় তার বিরুদ্ধে র‌্যাব এর দায়ের করা অস্ত্র মামলাসহ ৭-৮টি মামলা রয়েছে। এছাড়া রজতরেখা নদী অবৈধ ভাবে দখল করে ২০-২২টি দোকান নিমার্ণ করেছেন তিনি। বর্ষা মৌসুমে পদ্মা চরের কৃষকের ফসলি জমি কেঁটে মাটি বিক্রয়সহ রজতরেখা নদীর প্রবেশ মুখ বন্ধ করে পকেট বানিয়ে রমরমা বালু ব্যবসা করে চলেছেন। গতবছর অবৈধ ভাবে পদ্মার শাখা নদী ভরাট করে রাস্তা বানিয়ে আলু চাষীদের থেকে মোটা অঙ্কের চাঁদা আদায় করতেন ইসমাইল মেম্বার।পরে দৈনিক সমকাল পত্রিকায় একটি প্রতিবেদন প্রকাশিত হলে আদালতের নির্দেষে প্রশাসনের হস্থক্ষেপে বন্ধ হয় যায় তার চাঁদাবাজি।

এবিষয়ে অভিযুক্ত ইসমাইল বেপারির সাথে একাধিকবার যোগাযোগ করা চেষ্টা করলেও মোবাইল বন্ধ থাকায় যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি ।

এবিষয়ে দিঘীরপাড় পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ মো.জিল্লুর রহমান জানান, গতকাল রাতে পূবরাখি গ্রামে গাছ কাঁটা নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে উত্তপ্ত বাকবিতন্ডা হয়। পরে পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গেলে পরিস্থিতি শান্ত হয়। দুই পক্ষকে ডেকে দিল মোহাম্মদ দিলু মেম্বার ও ইসমাইল বেপারি থেকে মুছোলেখা রাখা হয়। তিনি আরো জানান, যেহেতু জমির মালিক নুরনবীর আদালতে মামলা দায়ের করেছে । মামলার সমাধান না হওয়া পর্যন্ত কেউ ওই জমি দখল বা জমির গাছ কর্তন করতে পারবে না। তবে সাংবাদিক লাঞ্চিত ঘটনার কোনো অভিযোগ পায়নি। পেলে তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Leave a Reply

You can use these HTML tags

<a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <s> <strike> <strong>

  

  

  

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.