পদ্মায় ৫০ লাখ চিংড়ি রেণু অবমুক্ত

মুন্সিগঞ্জের লৌহজং উপজেলার শিমুলিয়া ৩ নং ঘাটে নৌ-পুলিশের জব্দ করা ৫০ লাখ চিংড়ি রেণু অবমুক্ত করা হয়েছে। রোববার (৩০ মে) বেলা ১১টার দিকে এ সমস্ত চিংড়ি রেণু অবমুক্ত করা হয়।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন লৌহজং উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মো.আসাদুজ্জামান। অবমুক্ত করা চিংড়ি রেণুর দাম ৫ কোটি টাকা বলে জানায় নৌ-পুলিশ।

এর আগে ভোরে শিমুলিয়া ঘাট থেকে ৬৬ ড্রাম গলদা চিংড়ির রেণু জব্দ করে মাওয়া নৌ-পুলিশ। এ সময় অবৈধ রেণু পরিবহনের দায়ে দুই ব্যক্তিকে আটক করা হয়। মাওয়া নৌ-পুলিশের ইনচার্জ সিরাজুল কবিরের নেতৃত্বে নৌ-পুলিশের একটি দল শিমুলিয়া ঘাটে অভিযান চালিয়ে এসব চিংড়ি রেণু জব্দ করে।

মাওয়া নৌ-পুলিশের ইনচার্জ সিরাজুল কবির ঢাকা পোস্টকে বলেন, জব্দ করা চিংড়ি রেণুগুলো শিমুলিয়া ৩ নং ঘাটের কাছে পদ্মা নদীতে অবমুক্ত করা হয়েছে। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রোববার ভোরে শিমুলিয়া ঘাটে অভিযান চালায় নৌ-পুলিশ। এ সময় খুলনামুখী একটি পিকআপ ভ্যান থেকে ৬৬ ড্রাম গলদা চিংড়ির রেণু জব্দ করা হয়।

এ সকল রেণুর মূল্য আনুমানিক পাঁচ কোটি টাকা। অবৈধ রেণু পরিবহনের দায়ে দুইজনকে আটক করা হয়েছে। গলদা চিংড়ি মাছের রেণু আরহণ অবৈধ হলেও এক শ্রেণির অসাধু মাছ ব্যবসায়ী এ সকল রেণু চট্টগ্রামের সাগর ও নদী থেকে আরহণ করে খুলনার ঘের মালিকদের কাছে দীর্ঘ দিন ধরে বিক্রি করে আসছে।

ব.ম শামীম/ঢাকা পোষ্ট

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.