লৌহজংয়ে পূর্ব শত্রুতার জেরে স্বামী-স্ত্রীকে পিটিয়ে জখম

মুন্সীগঞ্জের লৌহজংয়ের গাঁওদিয়া ইউনিয়ন ঘৌলতলী বাজারের পূর্ব পাশে বাড়ির সীমানা নিয়ে পূর্ব শত্রুতার জেরে স্বামী ও স্ত্রীকে পিটিয়ে জখম করেছে প্রতিপক্ষ।

গতকাল বৃহস্পতিবার (৮ জুলাই) সন্ধ্যায় বাড়ির সীমানায় টিনের চাল রাখা নিয়ে প্রতিবেশী শাহ আলমের সাথে কথা কাটাকাটির এক পর্যায় দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে শাহ-আলম বেপারী সহ একই পরিবারের পাঁচ জন মিলে পিটিয়ে মো.মিজানুর রহমান (৪৪) স্ত্রী ইয়াসমিন বেগম (৩৭)কে গুরুতর জখম করেন।

আহতদের ঘটনাস্থল থেকে এলাকাবাসী তাদের কে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। প্রতিপক্ষের আঘাতে মিজানুর রহমানের মাথায ফেটে যায়। এব্যপারে মিজানুর রহমান লৌহজং থানায় ৫ জনের নামে একটি লিখিত অভিযোগ করেন।

অভিযুক্তরা হলেন মো.শাহ আলম বেপারী (৪২),সুলতানা বেগম (৩৫),আইরিন বেগম(৩০),জান্নাত বেগম ও (৩০) আফসানা বেগম (৩৫)।

গাঁওদিয়া ইউনিয়ন ৯নং ওয়ার্ড স্থানীয় মেম্বার মো.রতন বলেন, স্বামী -স্ত্রীকে পিটিয়ে জখম করছে বিষয়টি শিকার করে। কিন্তু সামাজিক বিচার করতে তিনি ব্যর্থতার দায় শিকার করেন।

গাঁওদিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মো.মিজান হাওলাদার জানান, একাধিক বার স্থানীয় গণ্যমান্য লোকজন নিয়ে আগে অভিযুক্ত শাহ-আলম কে সামাজিক ভাবে অনেক বিচার করে দেয়া হয়েছে।গতকালের ঘটনা তিনি নিন্দা জানান, এবং তাদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেয়ার জন্য বলেন।এব্যাপারে শাহ আলমের মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হলে তিনি ফোন রিসিভ করেননি।

এ ব্যাপারে লৌহজং থানা অফিস ইনচার্জ (ওসি) মো.আলমগীর হোসাইন জানান, গতকাল রাতে অভিযোগ নেয়া হয়েছে। পুলিশ পাঠানো হয়েছে । পাঁচ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ দেয়া হয়েছে।তাদের ঘটনার সাথে জড়িত সত্য প্রমাণ পাওয়া গেলে আইনের আলোকে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ইনকিলাব

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.