স্ত্রীকে মেরে পলাতক কাবাডি সেক্রেটারি

আবারও স্ত্রীর গায়ে হাত তুলে আলোচনায় কাবাডি ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম। তবে এ যাত্রায় আর তার রক্ষা হচ্ছে না। এবার তার বিরুদ্ধে নারী নির্যাতনের অভিযোগ এনে সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন স্ত্রী মাহফুজা বেগম। মুন্সীগঞ্জ সদর থানায় বুধবার এ জিডি (নং-৫৩৯, মুন্সীগঞ্জ থানা, তারিখ ১৩ এপ্রিল ২০১৬) করা হয়। মঙ্গলবার স্ত্রীকে মারধরের পর থেকেই খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না নজরুলকে। তার মুঠোফোনটিও বন্ধ রয়েছে।

মাহফুজা বেগমের দায়েরকৃত জিডিতে উল্লেখ করেন বিবাদী নজরুল ইসলাম পারিবারিক বিষয়াদী নিয়ে প্রায় সময়েই আমার সঙ্গে ঝগড়ায় লিপ্ত হয়। উক্ত বিবাদী গত ১২ই এপ্রিল রাত আনুমানিক সাতটা ৪৫ মিনিটে আমার সহিত কলহে লিপ্ত হয়ে আমার নাকে, মুখে ও চোখে কিল ঘুষি মেরে আমাকে জখম করে। আমাকে গালিগালাজ করে এবং আমাকে বিভিন্ন ধরনের ভয়ভীতি ও হুমকি প্রদর্শন করে বাড়ি থেকে বের হয়ে যায়। মাহফুজা বেগমের কথায়, ‘নজরুল ইসলাম আমার দুই চোখে ঘুষি মারায় মারাত্মক আঘাত পেয়েছি আমি। দুই চোখে রক্ত জমাট বেঁধেছে। সদর হাসপাতালের ডাক্তার আমাকে জানিয়েছেন যে, দ্রুত চিকিৎসা করাতে না পারলে ভবিষ্যতে আমি অন্ধ হয়ে যেতে পারি।

তাছাড়া মঙ্গলবার আমাকে মারধরের পর থেকেই নজরুল ইসলাম নিখোঁজ রয়েছেন। তার মুঠোফোন বন্ধ। তাকে কোথাও খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না।’

এদিকে নজরুল ইসলামের নারী নির্যাতনের খবর জেনে ক্ষোভ ঝেড়েছেন বাংলাদেশ জেলা ও বিভাগীয় ক্রীড়া সংগঠক পরিষদের মহাসচিব আশিকুর রহমান মিকু। তার কথায়, ‘আমরা সব সময় নজরুল ইসলামকে শ্রদ্ধা করে এসেছি। তাই তার কাছ থেকে এমন নারী নির্যাতনের আচরণ প্রত্যাশা করিনি। তাছাড়া যে কোনো অমানবিক আচরণ বা কাজ নিঃসন্দেহে নিন্দনীয়।

যদি কেউ এরকম নিন্দনীয় কাজের সঙ্গে সম্পৃক্ত থাকে, সে কাজকে আমরা সমর্থন করি না। একজন ক্রীড়া সংগঠক হিসেবে তার এমন অমানবিক কাজ আমাদের সংগঠনের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করে।’ উল্লেখ্য এর আগেও নজরুল ইসলামের বিরুদ্ধে একাধিকবার অভিযোগ করেছিলেন তার স্ত্রী মাহফুজা।

মানবজমিন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.