যশলংলে বোমা বিস্ফোরণ : দুইজন নিখোঁজ

মুন্সীগঞ্জের টংগীবাড়ী উপজেলার যশলং ইউনিয়নের দরজারপাড় গ্রামে বোমা বানানোর সময় বোমা বিস্ফোরিত হয়ে প্রবাসীর বসত ঘর ছিন্ন বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। এসময় ৩জন গুরুতর আহত হয়েছে বলে জানা গেছে। আহতরা হলেন- মুসা (৪৮), পিতা-মজিদ উদ্দিন সাং পূর্ব মাকহাটী, রিমন (২৮) পিতা-মজিদ মিজি সাং পূর্ব মাকহাটী সদর থানা মুন্সীগঞ্জ ও রাকিব সর্দার পিতা- আমির সর্দার সাং হাটখান থানা-টংগীবাড়ী জেলা-মুন্সীগঞ্জ। আহতদের মধ্যে মুসা মারা গেছে বলে গুঞ্জন শোনা গেলেও হতাহতদের কোনো হদিস পাওয়া যায়নি। পুলিশের ধারণা তারা পুলিশের গ্রেফতার এড়াতে গোপনে চিকিৎসা নিচ্ছে। গতাকাল গভীর রাতে দরজারপাড় গ্রামের সৌদী প্রবাসী সিপনের বাড়ীতে এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ ঘটনার পর পর ঘটনাস্থলে গিয়ে আলামত উদ্ধার করে এবং স্থানীয় কয়েকজনকে জিজ্ঞাসাবাদ করে।

পুলিশ জানায়, আসন্ন ২৮ মে মোল্লাকান্দির ইউপি নির্বাচনকে সামনে রেখে প্রতিপক্ষের লোকজনের উপর হামলার জন্য বোমা তৈরী হচ্ছিল। বোমা বিস্ফোরণের ঘটনায় কারা জড়িত তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। হতাহতের কোনো হদিস পাওয়া যায়নি।

গ্রামবাসীরা জানায়, গতকাল রাত আনুমানিক দেড়টার দিকে তারা বোমা বিস্ফোরণের শব্দ শুনতে পান। পরে জানতে পারেন ঘটনাটি সৌদি প্রবাসী সিপনের বাড়িতে ঘটেছে। সিপন দীর্ঘ ৮ বছর ধরে সৌদিতে আছেন। কিছুদিন আগে দেশে এসে বিয়ে করে যান। এজন্য নতুন ঘরটি তুলেছিলেন। হবু স্ত্রী শ্বশুড় বাড়ী মহাকালীতে থাকেন। বসত ঘরটি ফাঁকা পেয়ে সিপনের আপন ভাগ্নে হাটখান ইউনিয়নের আমির সর্দারের ছেলে রাকিব, এলাকার জামাই পূর্ব মোল্লাকান্দির মিল্টন (৩৮), মুসা ও রিমনসহ ৪/৫ জন বসবাস করতেন। মিল্টন মোল্লাকান্দি ইউনিয়নের ইউপি চেয়ারম্যান প্রার্থী শাহ-মল্লিকের আপন চাচাতো ভাই বারেক মল্লিকের ছেলে।

গতকাল বুধবার গভীর রাতে হঠাৎ বোমা বিস্ফোরিত হয়। এতে বোমার আঘাতে নতুন চৌচালা ঘরের বেশীরভাগ অংশ গুঁড়িয়ে যায় এবং ঘরে থাকা সকল আসবাবপত্র ছিন্ন বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। সেই সাথে বোমার স্পিন্টারের আঘাত পাশের ঘরে টিনের চাল ও বেড়াতে আঘাত হানে। এ সময় ঘরের ভিতরে ও বাহিরে বোমা তৈরীর বিপুল পরিমান সরঞ্জাম পড়ে থাকতে দেখা যায়। এতে প্রায় ২-৩ লক্ষ টাকার ক্ষতি সাধন হয়েছে বলে জানান এলাকাবাসী। সরেজমিনে ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখা গেছে ঘরটি সম্পূর্ণ বিধ্বস্ত হয়ে গেছে। ঘরের একপাশ পুরোপুরি বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। পাশের ঘরটিও ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। ঘরের মেঝেতে ও উঠানে ছোঁপ ছোঁপ রক্তের চিহৃ দেখা গেছে। ঘরের ভিতরে যারা ছিল তাদের হতাহতের বিষয়টি স্বাভাবিক।

খবর পেয়ে সকাল সাড়ে ১১টার সময় টংগাবাড়ী থানার পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে। এসময় বোমা তৈরীর আলামত জব্দ করেন। সেই সাথে বাড়ীর আশে পাশে থাকা লোকদের জিজ্ঞাসাবাদ করে টংগীবাড়ী থানা পুলিশ।

টংগীবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলমগীর হোসেন বলেন, রাতে বোমা বিস্ফোরনের ঘটনা ঘটেছে। কে বা কারা ঘটনাটি ঘটিয়েছে তা জানা যায়নি। বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। তবে, এ বিষয়ে কয়েকজনকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে। তাদের দেয়া তথ্য অনুযায়ী, আসন্ন মোল্লাকান্দি ইউনিয়নের নির্বাচনে ব্যবহারের জন্য ককটেল তৈরী হচ্ছিল। এসময় বিস্ফোরণে ঘটনা ঘটে থাকতে পারে বলে তিনি জানান।

ক্রাইম ভিশন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.