জাতের গরু পালনে উৎসাহিত করতে মুন্সীগঞ্জে জাতের গরুর মেলা

মুন্সীগঞ্জে জাতের গরুর মেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গরুর সংরক্ষণ ও উন্নয়নের জন্য খামারিদেরকে মুন্সীগঞ্জ জাতের গরু পালনে উৎসাহিত করা এই মেলার উদ্দেশ্য। রোববার দুপুর ২টায় মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার চর বাংলাবাজার এলাকায় দিনব্যাপী এই মেলা অনুষ্ঠিত হয়।

বিএলআরআই’র মহাপরিচালক ড. নাথুরাম সরকারের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন, মুন্সীগঞ্জ-৩ আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট মৃণাল কান্তি দাস।

আরো উপস্থিত ছিলেন, জেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা মো. আফাজ উদ্দিন মিঞা, সদর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) গাজী সাল¬াউদ্দিন, বিএলআরআইএ’র উর্দ্ধতন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. গৌতম কুমার দেব, বাংলাবাজার ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান সোহরাব হোসেন পীর প্রমুখ।

বিএলআরআই আয়োজিত ‘বাস্তবায়নাধীন মুন্সীগঞ্জ’ শীর্ষক প্রকল্পের অর্থায়নে আয়োজিত হয় এই মেলা। মুন্সীগঞ্জ জাতের গরু পালনকারী ৫০ জন খামারি উপস্থিত ছিলেন।

মেলায় অংশগ্রহণকারী খামারিদের মধ্যে গাভী পালনকারী ক্যাটাগরিতে ৫ জন, বকনা ক্যাটাগরিতে ১ জন এবং ষাঁড় ক্যাটাগরিতে একজন খামারিকে পুরষ্কৃত করা হয়।

বিএলআরআই ২০১৩ সালের মে মাস থেকে অহএজ শীর্ষক প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করছে যা চলতি বছরের জুন মাসে সমাপ্ত হবে। প্রকল্পটি কোরিয়ান সরকারের এএফএসিআই’র কর্মসূচির আর্থিক সহযোগিতায় বাংলাদেশসহ এশিয়ার ১৪টি দেশে বাস্তবায়িত হচ্ছে। অন্যান্য সদস্য দেশগুলো হচ্ছে কম্বোডিয়া, ভিয়েতনাম, ইন্দোনেশিয়া, ফিলিপাইন, লাওস, মঙ্গোলিয়া, থাইল্যান্ড, কোরিয়া, নেপাল, শ্রীলংকা, মায়ানমার, ভুটান ও কিরঘিস্থান। সামগ্রিকভাবে প্রকল্পের মুল উদ্দেশ্য হচ্ছে সদস্য দেশগুলোতে বিদ্যমান গুরুত্বপূর্ণ প্রাণিসম্পদের মূল্যায়ণ ও অংশীদারিত্ব এবং ফলপ্রসু ব্যবহারের লক্ষ্যে দক্ষতা বৃদ্ধিতে সহায়তা করা।

এই লক্ষ্যকে সামনে রেখে সদস্য দেশগুলো তাদের নিজ নিজ দেশের প্রয়োজনীয়তার আলোকে প্রকল্প কার্যক্রম গ্রহণ ও বাস্তবায়ন করছে। বিএলআরআই এর মহাপরিচালক ড. নাথুরাম সরকার বাংলাদেশে প্রকল্পটির প্রধান গবেষকের দায়িত্ব পালন করছেন।

অবজারভার

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.