মুন্সীগঞ্জে আরো একজন শনাক্ত, লক্ষণ নিয়ে বৃদ্ধের মৃত্যু

লৌহজংয়ে করোনাভাইরাসের লক্ষণ সর্দি, জ্বর, গলাব্যথা ও শ্বাসকষ্ট নিয়ে ৭৩ বছর বয়সী একজন মারা গেছেন। উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. শামীম আহমেদ জানান, মৃত ব্যক্তি নারায়ণগঞ্জে হোসিয়ারির ব্যবসা করতেন। মৃতের বাড়ি উপজেলার কলমা গ্রামে। গত ২০ মার্চ তিনি লৌহজংয়ের কলমায় গ্রামের বাড়িতে আসেন।

“কয়েকদিন আগে থেকে তিনি অসুস্থ হয়ে পড়লেও মঙ্গলবার আমাদের খবর দেন। এরপর আমরা তার নমুনা সংগ্রহ করি। তার শারীরিক অবস্থা গুরুতর হওয়ায় ওইদিন সন্ধ্যায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের অ্যাম্বুলেন্সে করে ঢাকার কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়।”

সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বুধবার সকালে মারা যান তিনি।

তার নমুনার রিপোর্ট আগামীকাল পাওয়া যাবে বলে জানান তিনি।

———————
মুন্সীগঞ্জের লৌহজংয়ে ৪২ বছরের এক ব্যক্তি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এবং সর্দি, জ্বর ও শ্বাসকষ্ট নিয়ে মারা গেছেন এক বৃদ্ধ। বুধবার রাতে আইইডিসিআর তার করোনাভাইরাস শনাক্ত হওয়ার খবর এসেছে বলে জানান লৌহজং উপজেলা নির্বাহী আফিসার কাবিরুল ইসলাম খান।

তিনি বলেন, “বুধবার রাতেই তাকে ঢাকার কুর্মিটোলা হাসপাতালে পাঠানোর ব্যবস্থা করা হয়েছে।”

উপজেলা নির্বাহী আফিসার আরও জানান, ৪২ বছর বয়সী ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী ঐ ব্যক্তি এজমা সমস্যা নিয়ে মঙ্গলবার মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালের সামনে থেকে বেসরকারি অ্যাম্বুলেন্সে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে যান।

“সেখানে ডাক্তারদের সন্দেহ হয়। তারা ঐ ব্যক্তির নমুনা নেওয়ার পর তিনি সিএনজি করে লৌহজংয়ের কলমায় চলে আসেন।

“এর দু-একদিন আগে তিনি বালিগাঁও একটা ওষুধের দোকানে গিয়ে ইনজেকশনও নেন। আমরা সেই দোকানটি চিহ্নিত করে লকডাইন করেছি।”

তবে অ্যাম্বুলেন্স বা সিএনজি চালককে চিহ্নিত করা যায়নি। তিনি যেখানে যেখানে গিয়েছেন সেসব জায়গা চিহ্নিত করার চেষ্টা চলছে। ইতোমধ্যে তার বাড়িসহ তিনটি বাড়ি লকডাউন করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

বিডিনিউজ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.