সিরাজদীখানে বাঁশ-বেত শিল্পে করোনার থাবা

করোনার থাবায় মুখ থুবড়ে পড়েছে মুন্সীগঞ্জের সিরাজদীখান উপজেলার মধুপুর মনিপাড়ার বাঁশ ও বেত শিল্প। এ বছর বৈশাখী মেলা বন্ধ থাকার পাশাপাশি রাজধানীর বাঁশ ও বেতের সামগ্রী বিক্রির দোকানপাট বন্ধ রয়েছে। ফলে উপজেলার বাঁশ ও বেতের সামগ্রী অবিক্রীত থেকে গেছে। এতে লাখ লাখ টাকা লোকসানের আশঙ্কায় রয়েছে মধুপুর মনিপাড়ার বাঁশ- বেত শিল্পের সঙ্গে জড়িত পরিবারগুলো।

মনিপাড়ার যতীন্দ্র দাস জানান, ঋষি সম্প্রদায়ের ৮০টি পরিবার ১০০ বছর ধরে বাঁশ ও বেতের সামগ্রী তৈরির পেশায় জড়িত। তারা বাঁশ ও বেতের দোলনা, ব্যাগ, পাখা, ঝাড়ূ, টোপা, ডালি, মাছ শিকারের পলি, খলিশান প্রভৃতি সামগ্রী তৈরি করে থাকে। এ বছর দেশের কোথাও বৈশাখী মেলা না হওয়ায় তাদের বেত-বাঁশের তৈরি সামগ্রী ঘরের মধ্যেই পড়ে আছে। আবার রাজধানীর এলিফ্যান্ট রোড ও ইস্কাটনের বাঁশ-বেতের সামগ্রী বিক্রির দোকানগুলো করোনার কারণে বন্ধ থাকায় মনিপাড়ায় আসছেন না দোকান মালিকরা। এতে বাঁশ-বেতের বিক্রি সামগ্রীগুলো বিক্রি না হওয়ায় অর্ধকোটি টাকা লোকসানের শঙ্কায় রয়েছে এ শিল্পের সঙ্গে জড়িত পরিবারগুলো।

সমকাল

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.